0
1

আমি বর্তমানে সিএসই তৃতীয় সেমিস্টারের স্টুডেন্ট! ভার্সিটিতে মাত্র দ্বিতীয় সেমিস্টারে সি করানো হয়েছে। তৃতীয় সেমিস্টারে ডাটা স্ট্রাকচার শুরু করবে। আমি যখন সি তে আরো স্বয়ংসম্পূর্ণ হওয়া,প্রব্লেম সোল্ভিং এবং নতুন নতুন ল্যাংগুয়েজ শিখার চিন্তা নিয়ে ব্যাস্ত তখনই আমাদের ব্যাচেরই একটা ছেলে এই জ্ঞানটুকু নিয়েই ভিবিন্য ধরনের প্রোগ্রাম তৈরীতে ব্যাস্ত! ও প্রায়ই ভিবিন্য ধরনের নতুন নতুন প্রোগ্রাম আপলোড দেয়। এসব দেখে নিজেই কনফিউজড হয়ে যাই, আমি কি ভুল নই তো? উৎসাহ হারিয়ে ফেলি ! এ মুহূর্তে আমার কি করনীয়? আমার এখন যতটুকু জ্ঞান আছে তা দিয়েই ওর মত প্রোগ্রাম বানানোর চিন্তায় নেমে পড়বো, নাকি নিজের ল্যাংগুয়েজ স্কিল আরো সমৃদ্ধ করবো? ওই ছেলেটাই বা কতটুকু সঠিক পথে আছে?

asked 13 Jan '15, 14:50

Rana's gravatar image

Rana
230217

edited 13 Jan '15, 14:52

এই সময়ে C ল্যাংগুয়েজটা ভালভাবে শিখে ডাটাস্ট্রাকচার/এলগরিদম এর জন্য নিজেকে প্রস্তুত উচিত। তুমি এখন এসিএম প্রব্লেম সলভ করতে থাক।

(13 Jan '15, 16:12) __salman__ ♦♦

ব্যাক্তিগত পরামর্শ, আরেকজনের সাথে তুলনা করে লাভ নাই, নিজের মেধা নিয়ে সন্তুষ্ট থেকে পরিশ্রম করে যাও এবং লেগে থাকো, সাফল্য এমনিই আসবে ।

(13 Jan '15, 16:56) Ahmad Sharif

ধন্যবাদ :)

(13 Jan '15, 19:03) Rana

প্রথম প্রথম এরকম অন্যদের এডভান্স কাজকর্ম দেখে হতাশ হবেন না। ধৈর্য ধরে প্রোগ্রামিং ল্যাঙ্গুয়েজ ভাল করে আয়ত্ত করতে থাকুন।সাথে সাথে ডাটাস্ট্রাকচার/এলগরিদম কোর্স গুলো করুন আর বিভিন্ন নতুন নতুন টেকনিক শিখুন যা আপনাকে দক্ষ প্রোগ্রামার হতে সাহায্য করবে।

সুবিন ভাইকে একবার জিজ্ঞেস করা হয়েছিল "কখন বুঝবো আমি C language রপ্ত করেছি?" তিনি বলেছিলেন, "যখন তুমি ৫০০-১০০০ ঘণ্টা C তে কোড করবে"।

আমার বাক্তিগত মতামত উল্লেখ করছি, আমি বর্তমানে ভাল ডেভেলপারদের দেখেছি যে তারা প্রথমে কোন একটি প্রোগ্রামিং Language ভাল করে রপ্ত করেছে। প্রচুর পরিমাণে রিয়াল লাইফ প্রবলেম সল্ভ করেছে।এরপর ভাল একজন ডেভেলপার হয়েছে। আর অনেক সময় যারা প্রথমে খুব বেশি নিজের স্কিল্ দেখাতে যায় তারা পরে পিছে পরে যায়। তাই ধৈর্য ধরে লেগে থাকুন। ইনশাল্লাহ আপনার লজিক আর আইডিয়া ভাল হলে আপনি ও ভাল ডেভেলপার হতে পারবেন। তবে তার আগে প্রয়োজন অনেক অনুশীলন। Happy Coding.

permanent link

answered 13 Jan '15, 17:10

Kaiser%20Ahmed's gravatar image

Kaiser Ahmed
3.2k419

প্রোগ্রামিং এর জন্য বেসিক প্রোগ্রামিং কনসেপ্ট ক্লিয়ার করা খুব বেশি জরুরি এবং সবার আগে এটা করাই জরুরি। তুমি যদি বেসিক প্রোগ্রামিং নলেজ ক্লিয়ার কর তাহলে অন্য যেকোন প্রোগ্রামিং language শেখা কোন ব্যাপার না । একটা জিনিস মনে রাখবে, ইউনিভার্সিটিতে তোমাকে সবকিছু শিখাবে না। নিজে নিজে অনেক কিছুই শিখতে হবে CSE পড়ার সময় । এর জন্য নিজের অনেক অনেক অনেক বেশি প্রোগ্রামিং প্রাকটিস করতে হবে । আমরা প্রতিটা মানুষ সবাই সবার জায়গা থেকে সবসময়ই সেরা । নিজের সেরাটুকু দেয়া চেষ্টা কর, কে কি করছে বা তোমাকে কে কি বলছে এসব নিয়ে একদম মাথা ঘামাবে না । সাফল্য আসবেই ।

permanent link

answered 13 Jan '15, 17:40

Tamanna%20Nishat%20Rini's gravatar image

Tamanna Nishat Rini ♦♦
2.9k311

ভাই থামেন । কে কত ঘন্টা কোডিং করল কে কইটা ল্যাংগুয়েজ শিখল ঐদিকে মন অথবা কান কিছুই দিয়েন না । মনে রাখবেন " Slow and steady wins the race " , কিন্তু কখনই হাল ছাড়া যাবে না । না না যাবে না । আপনার আশেপাশে যারা আপনার থেকে এগিয়ে গিয়েছে এর কারণ দুইটা হতে পারে : ১ঃ সে অনেক আগে থেকেই প্রোগ্রামিং শিখা শুরু করেছে । ২ঃ সে কিছুই জানে না ।

১ নাম্বার কেসটা বাংলাদেশে যদিও অনেক কম পারিপার্শ্বিক অবস্থার কারনে । যদি উনি আপনার আগে থেকে শুরু করেও থাকে তাহলেও টেনশন নিয়েন না । আপনি একটু দেরিতে শুরু করেছেন যা বাংলাদেশে স্বাভাবিক ব্যাপার । এখন লেগে থাকাই আপনাকে এগিয়ে নিয়ে যাবে । যে পথে আছেন ঐ পথে লেগে থাকুন আর হ্যা আপনার আশেপাশে যারা ফেইল করেছে তারা ভয় দেখাবে কারণ তাদের সাফল্যর সংজ্ঞা জানা নেই । ভয় না পেয়ে নিজেকে চ্যালেঞ্জ করুন নিজের সম্পর্কে জানুন । :) #Happy_Coding

permanent link

answered 16 Jan '15, 09:59

razibchamp's gravatar image

razibchamp
934

edited 16 Jan '15, 09:59

আশা করছি আপনার বিভিন্ন সেমিস্টারে একাডেমিক প্রজেক্ট আছে, আর কিছু না হলেও, সেগুলো যদি অনেক ভালোভাবে করেন, তাতেও অনেক কিছু জানতে পারবেন এবং একজন কম্পিউটার সায়েন্স গ্র্যাজুয়েট হিসেবে ভালো জ্ঞান নিয়ে বের হবেন। এইখানে আরো একটা ব্যাপার বিবেচ্য, এখন বিভিন্ন ধরনের কম্পিটিশন হয়, যতটুকু সম্ভব, কম্পিটিশন গুলোতে নাম লেখানোর চেস্টা করুন। এতে করে কম্পিটিশনের প্রজেক্ট কমপ্লিট করার তাড়া/উৎসাহ থেকেও অনেক কিছু শিখতে পারবেন।

permanent link

answered 15 Jan '15, 18:36

Tareq's gravatar image

Tareq
121

এটা আসলে ব্যাক্তি উপর নির্ভর করে, সবার স্কিল সমান না আবার সবার শিখার ধরনও সমান না। যেমন আমিও একটা ল্যাঞ্জুয়েজের যতটুকু শিখি তা দিয়েই ইমপ্লিমেন্ট করার চেষ্টা করি। রিয়েল টাইমে কিছু করার চেষ্টা করি। এবং করতে গিয়ে হাজারো সমস্যায় পড়ি। ধৈর্য ধরে একে একে সবগুলো সমস্যার সমাধান করি। প্রজেক্ট করতে গিয়ে আরো হাজারটা জিনিস শিখা লাগে। বুঝতে পারি কোন জিনিসটা অনেক গুরুত্বপূর্ণ। আমার ধারনা এই প্রক্রিয়ায় আমি অনেক ভাল কাজ করতে পারি। অনেকে আবার এই প্রক্রিয়ার কিছুই করতে পারে না। সে ভাবতেই পারে না যে কি করবে ! যেমন সি প্রোগ্রামিং করেছেন...সি প্রোগ্রামিং দিয়ে একটা ক্যালকুলেটর বানান। একটা ক্যালকুলেটর বানাতে গিয়ে কত কিছু শেখা লাগবে। নিজের চিন্তার মধ্যেই একটা এলগরিদম তৈরি হয়ে যাবে। মানুষ কাজ করতে করতে আরো স্কীল হলে বুঝতে পারে আগে যে কাজটা করেছি সেটা ঐভাবে না করে অন্যভাবে করলে হয়ত ভাল হত। দেখেন আগের ভুল থেকেই আপনি শিক্ষা নিচ্ছেন।

আবার অনেকে আছে আগে বইয়ের সব শেষ করতে চায়। তারপর প্রজেক্ট শুরু করতে চায়। আমি যা দেখেছি এদের অনেকেই সফল হয় আবার ব্যার্থও হয়। ব্যার্থ হয় এই কারনে যে বইয়ের ৪০০-৫০০ পেজ পড়তে তার লেগে যায় ৬-৮ মাস। তাও এর মধ্যে অনেক সময় কেটে যায় বন্ধু আড্ডা গানে। অনেক সময় ভার্সিটিতে ক্লাস টেস্ট থাকে, এই থাকে সেই থাকে। শেষে দেখা যায় সে খালি সিনটেক্স জানে ইমপ্লিমেন্ট করতে পারে না।

তাই আমার কোন জুনিয়র আমাকে প্রোগ্রামিং এর ব্যাপারে কোন কিছু সাজেশন চাইলে আমি ডাইরেক্ট বলি যে প্রোগ্রামিং কনটেস্টের প্রবলেমগুলো করতে থাক...চোখ বন্ধ করে করতে থাক। তোমার স্কিল অনেক বাড়বে।

আপনার যেহেতু এই সেমিস্টারে এলগরিদম ডাটা স্ট্রাকচার আছে সেটাও একেবারে ভাল করে পড়েন। কিছু কিছু এলগরিদম আছে যা বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই লাগে। প্রোগ্রামিং কনটেস্ট এর প্রবলেমগুলো সলভ করেন। তাহলে এলগরিদমের ইমপ্লিমেন্ট আরো ভাল বুঝতে পারবেন।

রিয়েল টাইমে যখন প্রজেক্ট করতে যাবেন অনেক প্রবলেম সলভ করতে হবে। স্টেপ বাই স্টেপ এলগরিদম নিজেকে চিন্তা করতে হবে। সব কিছু যে সূত্রের দেয়া নিয়মমতে মিলবে এমন কোন কথা নাই। সব চিন্তা করে বেস্ট কিছু বের করে ইমপ্লিমেন্ট করতে হবে।

তবে একটা জিনিস কি কোন প্রোগ্রামারই পারে না তার সিস্টেমকে ১০০ ভাগ নিরাপত্তা দিতে। ভুল থেকেই যায়। আজকে দেখলাম এক হ্যাকারকে ফেসবুক ১২৫০০ ডলার পুরষ্কার দিয়েছে। কারন সে ফেসবুকের সিস্টেমের দুর্বলতা বের করে দিয়ে ওদেরকে জানিয়েছে। এই সিস্টেমে অন্য কারো আপলোড করা ফটো পর্যন্ত ডিলিট করা যায়। ফেসবুকের ওরা চেক করে দেখল যে ওদের গ্রাফ API তে সমস্যা।

এর মানে হচ্ছে আমাদের উচিত সাধ্যমত একটা নির্ভুল ডিজাইন করা প্রোগ্রামিং দিয়ে। যে ছেলেটা আজকে সামান্য শিখেই ইমপ্লিমেন্ট করার চেষ্টা করছে সে ছেলেটাও এমনও হতে পারে অনেক ভাল করতে পারে। এ ধরনের ছেলের নতুন নতুন প্রোডাক্ট তৈরি করার সামর্থ্য বেশি থাকে। কারন তার ব্রেন চিন্তা করছে যে সে যা শিখেছে তার ইমপ্লিমেন্ট কিভাবে হবে। আবার যে কনটেস্ট প্রোগ্রামিং করে সেও ভাল করবে। আপনার যেটা ভাল্লাগে করতে থাকেন। হতাশ হওয়ার কিছু নেই।

ভাল করবে না তারাই যারা শুধুমাত্র প্রোগ্রামিং এর সিনটেক্স শিখে প্রোগ্রামিং প্রবলেমও সলভ করে না + ছোট ছোট কাজেও ইমপ্লিমেন্ট করে না। এই টাইপের স্টূডেন্টরা মুখস্থবিদ্যাতেই বেশ পারদর্শী। এরাও একটা সময় ভাল করবে... তবে সময় লাগবে। CSE থেকে পাশ করে কেউ বসে থাকে না।

permanent link

answered 14 Feb '15, 10:07

Mashpy%20Says's gravatar image

Mashpy Says
1365

Your answer
toggle preview

Follow this question

By Email:

Once you sign in you will be able to subscribe for any updates here

By RSS:

Answers

Answers and Comments

Markdown Basics

  • *italic* or _italic_
  • **bold** or __bold__
  • link:[text](http://url.com/ "title")
  • image?![alt text](/path/img.jpg "title")
  • numbered list: 1. Foo 2. Bar
  • to add a line break simply add two spaces to where you would like the new line to be.
  • basic HTML tags are also supported

Question tags:

×53

question asked: 13 Jan '15, 14:50

question was seen: 3,084 times

last updated: 14 Feb '15, 10:07